আ. লীগ নেতাদের বক্তব্য আদালত অবমাননার শামিল : ফখরুল

প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের মাজারে আজ শনিবার শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। ছবি : এনটিভি

ষোড়শ সংশোধনীর রায় এবং প্রধান বিচারপতিকে নিয়ে আওয়ামী লীগ নেতাদের বক্তব্য আদালত অবমাননার শামিল বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

আর দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ মনে করেন, রায় নিয়ে আওয়ামী লীগ যে দৃষ্টান্তস্থাপন করছে তা বাংলাদেশের ভবিষ্যতের জন্য কলঙ্ক হয়ে থাকবে।

সদ্য কারামুক্ত বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান বরকত উল্লাহ বুলুকে নিয়ে আজ শনিবার প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের মাজারে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে বিএনপির শীর্ষ এই দুই নেতা এসব কথা বলেন।

এ সময় সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ আইনের শাসনে বিশ্বাস করে না।

মির্জা ফখরুল আরো বলেন, ‘তাদের (আওয়ামী লীগ) প্রত্যেক নেতা প্রধান বিচারপতিকে লক্ষ্য করে অশালীন ভাষায় কথাবার্তা বলছে। আমি মনে করি যে, সম্পূর্ণ বেআইনি ভাষায় কথা বলছে এবং এটা আদালত অবমাননা করা হচ্ছে।’

বিএনপির মহাসচিব বলেন, ‘এদের উদ্দেশ্য হচ্ছে বিচার বিভাগের স্বাধীনতাকে নষ্ট করে দিয়ে একদলীয় শাসন ব্যবস্থা প্রবর্তন করা। যেটা এ দেশে মানুষ কখনই মেনে নেবে না। আমি মনে করি, এই রায়ের পরিপ্রেক্ষিতে এই অবৈধ, অনৈতিক সরকারের অবিলম্বে পদত্যাগ করা উচিত।’

রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে নির্বাচন কমিশনের সংলাপে দেশের রাজনৈতিক সংকটের কোনো সুরাহা হবে না বলেও জানান বিএনপির মহাসচিব।

শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ বলেন, ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায় নিয়ে সরকারের প্রতিক্রিয়া নজিরবিহীন।

মওদুদ বলেন, প্রশাসনে বা সরকারে যাঁরা আছেন কোনো একটা রায় নিয়ে প্রধান বিচারপতির সঙ্গে তাঁদের আলাপ করা এটা সম্পূর্ণ অসাংবিধানিক। তারা (আওয়ামী লীগ) যে দৃষ্টান্তস্থাপন করেছে, এটা বাংলাদেশের ভবিষ্যতের জন্য অত্যন্ত কলঙ্কজনক হয়ে থাকবে।

[খবরটি এখান থেকে এসেছে]

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*